আমলকীর অজানা স্বাস্থ্য উপকারিতা

আমলকীর অজানা – আমলকীর ভেষজ গুণ রয়েছে অনেক। এর ফল ও পাতা দুটিই ওষুধরূপে ব্যবহার করা হয়। আমলকীতে প্রচুর ভিটামিন ‘সি’ থাকে। পুষ্টি বিজ্ঞানীদের মতে, আমলকিতে পেয়ারার চেয়ে ৩ গুণ ও কাগজি লেবুর চেয়ে ১০ গুণ বেশি ভিটামিন ‘সি’ রয়েছে।

মলকীকে পাওয়ার হাউস বা শক্তির বাড়ি বলা হয়। এর মধ্যে রয়েছে ভিটামিন সি, আয়রন, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। আমলকীর রস নিয়মিত খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে। তাই নিয়মিত আমলকী খাওয়ার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।

আমলকীর রসের কিছু গুণের কথা জানেন:

১.ঋতুস্রাবের ব্যথা কমায়

আমলকী ভিটামিন ও মিনারেলে ভরপুর একটি ফল। এর রস ঋতুস্রাবের ব্যথা কমাতে কার্যকর। এটি কেবল শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ কমাতে সাহায্য করে না, ঋতুস্রাবকে সহজ করতেও কাজ করে।

২.অ্যাজমা কমায়

আমলকীর রসের মধ্যে কয়েক ফোঁটা মধু মিশিয়ে খেলে অ্যাজমা অ্যাটাকের আশঙ্কা কমে। এমনকি দিনে দুবেলা আমলকীর রস খাওয়া শ্বাসকষ্টের সমস্যাকে কমাতে সাহায্য করে।

৩.ক্যানসার প্রতিরোধ করে

আমলকীর রসের মধ্যে রয়েছে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এটি ফ্রি রেডিক্যালসের কমিয়ে ক্যানসার প্রতিরোধে সাহায্য করে।

৪.ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করে

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে আমলকীর রস উপকারী। এর মধ্যে রয়েছে ক্রমিয়াম। এটি রক্তের সুগারের মাত্রাকে নিয়ন্ত্রণ করে।

৫.কোষ্ঠকাঠিন্য কমায়

আমলকীর মধ্যে রয়েছে আঁশ। নিয়মিত আমলকীর রস খাওয়া কোষ্ঠকাঠিন্য কমাতে কাজ করে। তবে অতিরিক্ত আমলকীর রস খাবেন না। পরিমিত পরিমাণে খান।